যেভাবে ত্বকের যত্ন নিবেন - Skin Care

রূপচর্চা-বিষয়ক একটি ওয়েবসাইটে প্রকাশিত প্রতিবেদন থেকে অ্যাপল সাইডার ভিনিগার দিয়ে ত্বক পরিচর্যার পন্থা সম্পর্কে জানানো হল।
ত্বকের যত্ন: অ্যাপল সাইডার ভেষজ অ্যাসিড সমৃদ্ধ যাতে আছে ‘অ্যান্টিমাইক্রোবিয়াল’ ও ‘অ্যাস্ট্রিজেন্ট’ উপাদান। এটা ত্বকের নানান সমস্যা সমাধানে সাহায্য করে।

এক্সফলিয়েট করা: ত্বক গভীর থেকে পরিষ্কার না হলে তা মোটেও সুস্থ থাকেনা। অ্যাপল সাইডার ভিনিগারে আছে হাইড্রোক্সাইল অ্যাসিড যা ত্বকের মৃত কোষ, ময়লা এবং ত্বকের অন্যান্য সমস্যা দূর করে ত্বককে পরিষ্কার ও উজ্জ্বল করে। 
ত্বক কোমল রাখে: দূষণের কারণে ত্বক হয়ে পড়ে শুষ্ক ও নির্জীব। এই ভিনিগারে থাকা ভিটামিন বি-১, বি-২, বি-৬ এবং সি ত্বক মসৃণ ও কোমল করে।
রোদপোড়া ভাব কমায়:  সূর্য থেকে সুরক্ষিত থাকতে  সানস্ক্রিন ব্যবহার করা আবশ্যক। এরপরেও যদি ত্বকে রোদপোড়াভাব দেখা দেয় তাহলে তাৎক্ষণিকভাবে রক্ষা পেতে অ্যাপল সাইডার ব্যবহার করুন। এর প্রদাহরোধী উপাদান দ্রুত সমাধান পেতে সহায়তা করে।   
ব্রণ থেকে রক্ষা: ময়লা ও তেল ত্বকের লোমকূপ আটকে দেয়। ফলে ব্যাক্টেরিয়ার জন্ম হয়, যা থেকে হয় ব্রণ। অ্যাপল সাইডার ভিনিগারের ফাঙ্গাস ও ব্যাক্টেরিয়া রোধী উপাদান এমন সংক্রমণ ও ত্বকের ভাঁজ থেকে রক্ষা পেতে সহায়তা করে।
বয়সের ছাপ কমায়: নিয়মিত ব্যবহারে অ্যাপল সাইডার ভিনিগার ব্যবহারে বয়সের ছাপ যেমন- ভাঁজ, বলিরেখা, দাগ ও অন্যান্য সমস্যা কমায়।
ত্বক পরিষ্কারক মাস্ক
উপাদান: ৩ টেবিল-চামচ মধু। আধা কাপ অ্যাপল সাইডার ভিনিগার। বরফের টুকরা।
পদ্ধতি: একটা বাটিতে মধু নিন। এতে ভিনিগার নিয়ে ভালো মতো মেশান। মিশ্রণটি মুখে মেখে ৩০ মিনিট অপেক্ষা করুন। এরপর কুসুম গরম পানি দিয়ে মুখ ধুয়ে নিন। এরপর ত্বকের লোমকূপ বন্ধ করতে বরফের টুকরা ঘষুন। এতে ত্বক হবে টান টান।
এই মাস্ক ব্যবহারে ত্বক মসৃণ হবে, ত্বক গভীর থেকে পরিষ্কার হবে এবং প্রদাহ কমবে।

Post a Comment

0 Comments